×
Offbeat

লাল চন্দন কেন এত দামী? ৯৯% মানুষই জানেন না

আমরা সবাই জানি চন্দনের (Sandal) কতটা গুণাগুণ রয়েছে। প্রাচীনকাল থেকেই আয়ুর্বেদ এবং রূপচর্চার ক্ষেত্রে চন্দনের ব্যবহার হয়ে আসছে। চন্দন প্রধাণত দুধরনের হয়ে থাকে, লাল চন্দন ও সাদা চন্দন। এই দুটির মধ্যে লাল চন্দনের গুণাগুণ ও দাম দুইই বেশি। জানেন কি লাল চন্দনের মধ্যে কি কি গুণাগুণ রয়েছে? কেনই বা লাল চন্দন কাঠের দাম এত বেশি?

লাল চন্দন কেন এত দামী? ৯৯% মানুষই জানেন না -

চন্দন যেকোনো ধরনের মাটিতেই চাষ করা যায়। বিশেষ ভাবে বালিযুক্ত মাটিতে এই গাছ ভাল হয়। একটি চন্দন গাছ উচ্চতায় ৪-১১ মিটার লম্বা হতে পারে। একটি চন্দন গাছ উপযুক্ত পরিমানে বড় হয়ে প্রাকৃতিক নিয়মে ৩০ বছর সময় লাগে। কিন্তু এখন কৃষি প্রযুক্তির সাহায্যে এগুলোকে যথেষ্ট বড় করা সম্ভব হয়েছে। ভারতের তামিলনাড়ু ও অন্ধ্রপ্রদেশ মিলিয়ে মোট ৪ টি জেলায় ব্যাপকভাবে চন্দনের চাষ করা হয়। এই চন্দন কাঠ বিক্রি করে ভারতে প্রচুর পরিমাণে বিদেশি মুদ্রা আসে।

লাল চন্দন কেন এত দামী? ৯৯% মানুষই জানেন না -

লাল চন্দন কাঠের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা রয়েছে। এই কারণে পৃথিবীর বিভিন্ন জায়গায় জীবনদায়ী ওষুধ তৈরির কাজে লাল চন্দনকাঠ ব্যাপক হারে ব্যবহার করা হয়। সম্প্রতি জানা গেছে যে স্তন ক্যান্সার এবং জটিল ধরনের চর্মরোগ সারাবার ক্ষেত্রে লাল চন্দনের খুব ভাল কার্যকারিতা আছে। লাল চন্দন কাঠে কোন গন্ধ না থাকলেও এটা রূপচর্চা ও ফেসিয়াল তৈরির কাজে ব্যাপকভাবে ব্যবহার করা হয়। এছাড়া মদ তৈরি ও বিভিন্ন শৌখিন জিনিস তৈরির কাজে লাল চন্দন কাঠের ব্যবহার হয়।

লাল চন্দন কেন এত দামী? ৯৯% মানুষই জানেন না -

চীনে চন্দন কাঠের বাসন এবং আসবাবপত্রের বিশেষ ব্যবহার রয়েছে। ঐতিহ্যগতভাবে এগুলি বাড়িতে রাখা বিশেষ সম্মান ও মর্যাদার প্রতীক বলে গণ্য করা হয়। এমনকি চীনে একটি মিউজিয়াম রয়েছে যেটি সম্পূর্ণভাবে লাল চন্দনকাঠ দিয়েই তৈরি। এই সব কারণেই চীনসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে লাল চন্দন কাঠের অত্যধিক চাহিদা রয়েছে। সেই কারণে এই কাঠের দাম এত বেশি।