×
Lifestyle

নেই কোন ঝামেলা! এখন পেঁপে ও কলা দিয়েই হবে কাঁঠাল চারা, ফলন হবে ১২ মাস

কাঁঠাল (Jackfruit) খেতে সবাই কমবেশি ভালোবাসেন। এটা পাকা ফল হিসেবে যেমন খাওয়া যায় তেমনি কাঁচা অবস্থায় সব্জি হিসেবেও খাওয়া যায়। বাড়িতে একটা কাঁঠাল গাছ লাগাতে চান? কাঁঠালের বীজ থেকেই চারা তৈরি করা যায়। কিন্তু সেই চারায় ফল আসতে অনেক দেরি হয়। তার তুলনায় কাটিং থেকে তৈরি গাছে তাড়াতাড়ি ফল আসে। জানেন কি কাটিং থেকে কিভাবে চারা তৈরি করা যায়?

নেই কোন ঝামেলা! এখন পেঁপে ও কলা দিয়েই হবে কাঁঠাল চারা, ফলন হবে ১২ মাস -

এই পদ্ধতিতে চারা তৈরি করার জন্য কাঁঠাল গাছের কাটিং লাগবে। কাঁঠাল গাছের গা থেকে বেরনো যে কোন ছোট ডালকে কাটিং হিসেবে ব্যবহার করা যায়। লক্ষ্য রাখতে হবে যেন ডালটি একটা আঙুলের সমান মোটা হয়। গাছে ফলে থাকা একটি পাকা পেঁপের গায়ে ছুরি দিয়ে গর্ত করে কেটে নিতে হবে। এবার একটা পাকা কলা নিন। পাকা কলা অর্গানিক ফার্টিলাইজার, এটা রুটিং হরমোন হিসেবেও খুব ভালো কাজ করে।

নেই কোন ঝামেলা! এখন পেঁপে ও কলা দিয়েই হবে কাঁঠাল চারা, ফলন হবে ১২ মাস -

কাঁঠাল গাছের কাটিংটির কাটা দিকটা এক টুকরো পাকা কলার মধ্যে ঢুকিয়ে দিন। পাকা কলা সহই কাঁঠাল গাছের কাটিং পেঁপেতে করা চৌকো ফুটোর মধ্যে ঢুকিয়ে দিন। ওপর থেকে সেলোটেপ বা অন্য কিছু দিয়ে আটকে দিন যাতে ওটা পড়ে না যায়। ১৮-২০ দিনের মধ্যে ওই কাটিং থেকে পাতা বেরিয়ে যাবে। আরও ২০ দিন পর আপনি ওটা পেঁপে সহ গাছ থেকে কেটে নিন।

নেই কোন ঝামেলা! এখন পেঁপে ও কলা দিয়েই হবে কাঁঠাল চারা, ফলন হবে ১২ মাস -

পেঁপে সহ কাটিংটি একটা বড় টবে পুঁতে দিন। এরজন্য মাটির সঙ্গে ভার্মি কম্পোস্ট, গোবরসার বা অন্য জৈব সার মিশিয়ে নিন। নিয়মিত জল দিন, প্রয়োজন মত সার দিন। যথাসময়ে আপনার চারাগাছটি বড় হয়ে উঠবে।

নেই কোন ঝামেলা! এখন পেঁপে ও কলা দিয়েই হবে কাঁঠাল চারা, ফলন হবে ১২ মাস -